বিশেষ সংবাদ:

মদ খেয়ে মেয়েদের সঙ্গে অসভ্যতা করতেন অলোকনাথ!

Logoআপডেট: শনিবার, ১৩ অক্টোবর, ২০১৮

এবি ডেস্ক

‘কাস্টিং কাউচ’ নিয়ে ঝড় বইছে বলিউডের সংবাদমাধ্যমসহ পুরো নেটদুনিয়ায়। তারকাদের যেভাবে পর্দায় দেখে অভ্যস্ত দর্শকরা, সেই পছন্দের তারকাই পর্দার বাইরে যে কতটা ভয়ঙ্কর হতে পারে, সেই গল্পই উঠে আসছে একের পর এক৷ এ নিয়ে বাড়ছে নানা শঙ্কা এবং কৌতূহলও। #MeToo নিয়ে এবার সরব হলেন রেণুকা সাহানে৷

হাম আপকে হ্যায় কৌনে মাধুরীর দিদি-র চরিত্র অভিনয় করা রেণুকা তুলে ধরলেন ‘কাস্টিং কাউচ’ নিয়ে ভয়ঙ্কর তথ্য৷ প্রথমই যাকে নিয়ে বিতর্ক তৈরি হয়েছে, তিনি অলোকনাথ৷ 'সংস্কারি বাবা'-র ভূমিকায় যাকে দেখে অভ্যস্ত আপামর দেশবাসী, তার পেটে নাকি মদ পড়লে ভয়ঙ্কর হয়ে ওঠেন তিনি৷ অলোকনাথকে নিয়ে অনেক আগেই  শ্লীলতাহানি ও ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে৷

এবার জানা গেল, মদ খেলে তিনি নিজেকে সামলাতে পারেন না৷ তখন মহিলাদের প্রতি তার দুর্ব্যবহার বেড়ে যায় এমনকি তাদের সঙ্গে অসভ্যতা করতেও দ্বিধা করেন না পর্দার 'সংস্কারি বাবা' ৷ হাম আপকে হ্যায় কৌন ছবিতে তার মেয়ের চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন রেনুকা সাহানে৷ তিনিই এই তথ্যে সিলমোহর দিয়েছেন ৷

আরেক অভিনেত্রী দীপিকা আমিন সোশ্যাল মিডিয়ায় এই বিষয়টি প্রকাশ্যে আনেন৷ তিনি জানিয়েছেন যে মদ খেলেই নিজেকে সামলাতে পারেন না অলোকনাথ ৷ তখনই মেয়েদের সঙ্গে তার ব্যবহার বদলে যেত৷ দীপিকার সঙ্গে এমন একটি ঘটনা ঘটে৷ #MeToo ক্যাম্পেনে এই ঘটনা সামনে আনেন দীপিকা৷ তাকে সমর্থন করেন রেনুকা৷ তিনি বলেন, অলোকনাথের বিরুদ্ধে এই অভিযোগ আরও অনেকের কাছেই তিনি শুনেছেন৷ আপাতত অলোকনাথের বিরুদ্ধে ওঠা সব অভিযোগই বিচারাধীন৷

 

এবি/রায়হান