বিশেষ সংবাদ:

মোঃ সুমন তালুকদার এর ‘ভন্ডামী’

Logoআপডেট: বৃহস্পতিবার, ০৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৫

এক যে আছে ভন্ডলোক
ফেইসবুক বন্ধু,
মনের মাঝে লুকানো তার
ভন্ডামীর সিন্ধু।

 

পুরুষ হয়ে নারী সেজে
লিখে কবিতা গান,
অল্প দিনেই জমিয়েছে
অনেক খ্যাতি-সুনাম।

 

নারীর মুখোশ জড়িয়ে সে
গাঁয়ে দিয়েছে রং,
অন্যের নামে লিখে কবিতা
কতো যে তাহার ঢং।

 

মানুষ ঠকানোর কৌশল
ছল চাতুরী ঢের,
অন্ধকারে ভন্ডামী করে
পায়না কেউ টের।

 

সাহিত্যকে ধ্বংস করে
সাজে সাধুর বেশ,
এমনি ভাবেই বিনাশ করে
শান্তির পরিবেশ।

 

ধোকাবাজি আর বাটপারি
দারুণ একটা পেশা,
মাথায় তাহার ঢুকে গেছে
বাজে একটা নেশা।

 

হুরপরী হয়ে থাকে সেজে
ঠ্যাং যে তার খোঁড়া,
একদিন ঠিক হবে ফাঁস
সে যে একটা বুড়া।

 

খুব যে সে বেকুব বোকা
উন্মাদ ভন্ড ঠিক,
গাঁয়ে তাহার পড়বে জানি
অনেক পানের পিক।

 

খেলছে শুধু মিছেই খেলা
সে যে বড় ভন্ড,
ভুল করছে ভুলে পড়েছে
পাবে ঠিকই দন্ড।

 

ভন্ড তোমার ভন্ডামী
লিখলাম কলমে,
নষ্ট কীটের বংশ তুমি
শেষ হবে মলমে।

 

অতি চালাকি গলায় দড়ি
চোখ থাকিতে অন্ধ,
অনেক খেলা খেলছ তুমি
এবার করো বন্ধ।

 

তুমি বন্ধু রাগ করোনা
ভালোর নেই ক্ষয়,
সময় আছে লাইনে আসো
তবেই হবে জয়।

 

   ৩০-০৮-২০১৫
•ত্রিশাল,ময়মনসিংহ•