বিশেষ সংবাদ:

এবারের বইমেলায় মিলন কান্তি দে’র দুটি যাত্রাপালা

Logoআপডেট: রবিবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬

এবি প্রতিবেদক
অমর একুশে বইমেলায় এবার প্রকাশিত হয়েছে বিশিষ্ট যাত্রাজন মিলন কান্তি দে’র দুটি যাত্রাপালা নিয়ে একটি গ্রন্থ।

 

বইটি প্রকাশ করেছে ইত্যাদি গ্রন্থ প্রকাশ। মিলন কান্তি দে’র কয়েকটি যাত্রাপালা পা-ুলিপি আকারে পড়ে আছে। এর মধ্যে সদ্য প্রকাশিত দুটি যাত্রাপালাই জীবনীমূলক।

 

প্রথম পালাটির কেন্দ্রীয় চরিত্র ‘দানবীর’ বলে খ্যাত ইয়েমেনের বাদশাহ্জাদা ‘হাতেম তায়ী।’ মহান আল্লাহপাকের সৃষ্টি বৈচিত্র্য এবং তাঁর অপরূপ মহিমার মধ্যে মানবজীবনে মুক্তির সন্ধান করেছেন হাতেম।

 

অন্যদিকে আমৃত্যু আর্তমানবতার সেবায় নিজেকে বিলিয়ে দিয়েছেন। মুসলিম ঐতিহ্যের অনেক ঘটনা গল্প গান এই পালায় তুলে ধরা হয়েছে। দ্বিতীয় পালাটি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সংগ্রামী-জীবন নিয়ে- ‘বাংলার মহানায়ক।’ ১৯৬৯ সালের ২৩ ফেব্রুয়ারি শেখ মুজিবকে যেদিন ‘বঙ্গবন্ধু’ উপাধী দেয়া হয়, তখন থেকে পালাকাহিনী শুরু। ঐতিহাসিক বিভিন্ন ক্রান্তিকালের মধ্য দিয়ে মুক্তিযুদ্ধ শুরু, বঙ্গবন্ধুকে গ্রেপ্তার, স্বদেশ প্রত্যাবর্তন এবং ১৫ আগস্টের ট্র্যাজেডির মধ্যে এ যাত্রাপালার যবনিকা পড়ে।


দুটি যাত্রাপালা নিয়ে প্রকাশিত গ্রন্থের ভূমিকায় বিশিষ্ট নাট্যব্যক্তিত্ব মামুনুর রশীদ লিখেছেন- মিলন কান্তি দে বহু বছর ধরে যাত্রা নিয়ে লিখছেন, অক্লান্তভাবে যাত্রা নিয়ে কাজ করছেন, যাত্রার তাত্ত্বিক দিক, প্রচুর তথ্যনির্ভর লেখাও লিখেছেন। এবার সংস্কৃতিতে যুক্ত হলো তার নতুন দুটি পালা যাত্রা। ‘হাতেম তায়ী’ ও ‘বাংলার মহানায়ক’ দুটিই জীবনীমূলক পালা। মিলন কান্তি দে সাহস করে বঙ্গবন্ধুর সংগ্রামী জীবনের একটি অধ্যায় বেছে নিয়েছেন। পালাকার মিলন কান্তি দে বলেন- এদেশের যাত্রাদল ও শিল্পীদের জন্যে পালা লিখেছি। তারা যদি এ পালার অভিনয়ে আন্তরিক হন, তাহলে খুশি হব।